রবিবার, ১৭ জানুয়ারী, ২০২১

শিরোনাম

প্রকাশ : 2020-01-06

বাড়িতে তুলসী গাছের সামনে ভুলেও এই জিনিসগুলো রাখবেন না, অশান্তিতে জীবন ছারখার হয়ে যাবে

আমাদের প্রায় সব বাড়িতেই তুলসী গাছ আছে। কিন্তু তুলসী গাছের সামনে অনেক সময় আমরা এমন কিছু রেখে থাকি, যা রাখা হয়ত একদমই উচিত নয়।কিছু কিছু সময় দেখে যায়, বাড়িতে সব ধরনের নিয়ম মেনে চলেও অশান্তি কিছুতেই কমছে না, বরং দিন দিন অশান্তির পরিমাণ বেড়েই চলেছে। দুঃখ কষ্ট যেন পিছন ছাড়ছে না।

আবার অনেক সময় এমনটাও হয় যে, কোনও কাজ প্রায় শেষ হয়েও বাধা পাচ্ছে। তারপর দেখা যায় দিনের শুরুটা খুব সুন্দর কাটলো, কিন্তু দিনের মাঝামাঝি বা শেষটা অশান্তিতে ভরে উঠল। এ রকম কেন হচ্ছে, ভেবে ভেবে কোনও কূল কিনারা পাওয়া যায় না।

tulsi30

আমাদের প্রায় সব বাড়িতেই তুলসী গাছ আছে। কিন্তু তুলসী গাছের সামনে অনেক সময় আমরা এমন কিছু রেখে থাকি, যা রাখা হয়ত একদমই উচিত নয়।

কিছু কিছু সময় দেখে যায়, বাড়িতে সব ধরনের নিয়ম মেনে চলেও অশান্তি কিছুতেই কমছে না, বরং দিন দিন অশান্তির পরিমাণ বেড়েই চলেছে। দুঃখ কষ্ট যেন পিছন ছাড়ছে না।

আবার অনেক সময় এমনটাও হয় যে, কোনও কাজ প্রায় শেষ হয়েও বাধা পাচ্ছে। তারপর দেখা যায় দিনের শুরুটা খুব সুন্দর কাটলো, কিন্তু দিনের মাঝামাঝি বা শেষটা অশান্তিতে ভরে উঠল। এ রকম কেন হচ্ছে, ভেবে ভেবে কোনও কূল কিনারা পাওয়া যায় না। 

বাড়িতে তুলসী গাছ রয়েছে অথচ তার পুজো সঠিক নিয়মে না করার ফলে এমনটা হতে পারে, বা তুলসী গাছের কাছে অজান্তেই এমন কিছু জিনিস রেখে দেওয়া আছে যা রাখা একদমই উচিত নয়। এতে অশান্তির পরিবেশ সৃষ্টি হচ্ছে।

দেখে নেওয়া যাক তুলসী গাছের কাছে কী কী জিনিস রাখা যায় না:-

১) তুলসী গাছ যেন কখনোই শুকনো না থাকে৷ এটা সবসময় খেয়াল রাখবেন৷ কারণ এতে আপনার পরিবারের উপর খারাপ ছায়া পড়তে পারে৷

২) ভেজা কাপড়– যে কোনও ভেজা কাপড় যেন তুলসী গাছের কাছে না থাকে। ভেজা কাপড় শুকোতে দেওয়ার সময় খেয়াল রাখতে হবে যেন সেখানে তুলসী গাছ না থাকে। এর ফলে বাড়িতে প্রচুর পরিমাণে নেগেটিভ এনার্জি প্রবেশ করে এবং বাড়ির পরিবেশকে অশান্তিময় করে তোলে।

৩) কোনও দেবতার ছবি– মনে রাখতে হবে, তুলসী গাছের নীচে যেন কোনও দেবতার ছবি যেন না থাকে। তুলসী গাছকে সর্বদা একা রাখলে তবেই গৃহস্থের মঙ্গল।

৪) আবর্জনা– তুলসী গাছের আশেপাশে যেন কোনও ভাবেই আবর্জনা জমতে না পারে সে দিকে বিশেষ ভাবে নজর দিতে হবে। তুলসী গাছের চার পাশ পরিষ্কার পরিছন্ন থাকলে অশান্তি বাড়ি থেকে অনেক দূরে থাকবে এবং সংসারে শান্তি বজায় থাকবে।

৫) জুতো– তুলসী গাছের নীচে ভুল করেও জুতো রাখতে নেই বা থুতু ফেলতে নেই। এতে বাড়ির পজিটিভ শক্তি নষ্ট হয়। বাড়িতে অমঙ্গলের ছায়া নেমে আসে।

৬)যখন তখন গাছ থেকে তুলসী পাতা ছিঁড়ছেন? যদি এটা করে থাকেন তবে বলবো এখন থেকে তা বন্ধ করে দিন৷ কারণ তুলসী পাতা ছেঁড়ার একটা নির্দিষ্ট সময় আছে৷ পুরাণ অনুযায়ী একাদশী, দ্বাদশী, সংক্রান্তি, সন্ধ্যা বেলা কখনওই তুলসী পাতা ছেড়া উচিত না৷ তাই এই সময় গুলোয় কখনোই তুলসী পাতা ছিড়বেন না ৷

৭)কোন মরে যাওয়া তুলসী গাছ কখনওই বাড়িতে রাখবেন না৷ মরে যাওয়া বা শুকিয়ে যাওয়া তুলসী গাছ তুলে লাগান নতুন তুলসী গাছ৷

*আবার অনেকে না জেনে যে ভুলটি করে থাকেন যারা জানেন না তাদের জানা দরকার, জানলে ভুলেও আর করবেন না সাবধা!  

★অনেকেই সর্দি কাশি হলে তুলসী পাতা চিবিয়েই খেয়ে নেন৷ কিন্তু এটা খুবই খারাপ৷ কারণ তুলসী পাতায় অবস্থিত মার্কারি নামক উপাদান মানুষের দাঁত ও মাড়ির জন্যে খারাপ৷

 

সর্বশেষ সংবাদ